সাতক্ষীরা কলারোয়ায় সড়ক দূর্ঘটনায় পিতা নিহত, পুত্র আহত

251
কলারোয়ায়-ট্রাকের ধাক্কায়-মৃত্যু

জুলফিকার আলী,কলারোয়া(সাতক্ষীরা)প্রতিনিধি: সাতক্ষীরা কলারোয়ার চান্দুড়িয়া বাজার সংলগ্ন প্রধান সড়কে কলারোয়া থেকে ছেড়ে আসা (যশোর-ট ১১-২১৪৪) নাম্বার ট্রাকের ধাক্কায় আবু বক্কর সিদ্দিক (৪৫) নামে এক কৃষকের মৃত্যু হয়েছে।

তার বাইসাইকেলে সাথে থাকা রাফিদ উদ্দিন সিদ্দিক (০৪) নামের ছোট ছেলে গুরুত্বর আঘাত পেয়ে মুমূর্ষু অবস্থায় সাতক্ষীরা সদরে ভর্তি হয়েছে।

সোমবার (২১ডিসেম্বর) সকালে উপজেলার চন্দনপুর ইউনিয়নের চান্দুড়িয়া বাজার সংলগ্ন এলাকায় এ ঘটনাটি ঘটেছে।

নিহত আবু বক্কর সিদ্দিক চন্দনপুর ইউনিয়নের কাঁদপুর পূর্ব পাড়া গ্রামের মৃত আব্দুল মাজেদ সরদারের ছেলে।

নিহতের মা কুলসুম বেগম জানান, দীর্ঘদিন যাবত স্ট্রোক জনিত কারণে ছেলে আবু বক্কার সিদ্দিক অসুস্থ ছিল। প্রতিদিন সকালে রাস্তায় হাঁটতে যায় ও আবু বক্কর সিদ্দিক ঘটনার দিন সকালে শিশু ছেলে রাফিদের মিষ্টি খাওয়ার আবদার রক্ষা করতে পায়ে হেটে না গিয়ে সাইকেল যোগে স্থানীয় চান্দুড়িয়া বাজারে মিষ্টি কিনতে যায়।

মিষ্টি কিনে ফেরার পথে ট্রাকের ধাক্কা লেগে ঘটনাস্থলে মাথায় আঘাত প্রাপ্ত হলে তাকে গয়ড়া কিনিকে নেয়া হলে ডাক্তার আবু বক্কর সিদ্দিক তাকে মৃত্যু ঘোষনা করে। এসময় তার ছেলে রাফিদ উদ্দিন সিদ্দিককে মুমূর্ষ অবস্থায় সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করা হয়।

এঘটনায় কারো বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ করবেন না বলে পরিবারের পক্ষ থেকে জানান।

কলারোয়া থানা অফিসার ইনচার্জ মীর খায়রুল কবীর জানান, কলারোয়া থেকে চান্দুড়িয়া যাওয়ার পথে (যশোর-ট ১১-২১৪৪) নাম্বার ধারি এক ট্রাকের ধাক্কায় বাইসাইকেল আরোহী আবু বক্কর সিদ্দিক নামে এক ব্যক্তির মাথায় গুরুতর আঘাত পেয়ে রাস্তার ধারে ছিটকে পড়ে মৃত্যুবরণ করেন। তার সাথে থাকা ছোট্ট ছেলে রাফিদ উদ্দিনসিদ্দিকবর্তমানে সাতক্ষীরা সদরের চিকিৎসাধীন আছে।

এ ঘটনায় নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে কারো বিরুদ্ধে কোন অভিযোগ আনা হয়নি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে। নিহতের মৃতদেহ পরিবারের নিকট হস্তান্তর করা হয়েছে।

আরও পড়ুন>>>
শুটিংয়ের সময় হঠাৎ অসুস্থ  বিখ্যাত অভিনেতা মিঠুন চক্রবর্তী 

সিনহা হত্যা মামলায় সাবেক কনস্টেবল সাগরের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা

ট্রেনে কাটা পড়ে অজ্ঞাত এক যুবকের মৃত্যু

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here