কারাগারে ধর্ষণ মামলার আসামির সঙ্গে ভুক্তভোগীর বিয়ে

339
ধর্ষণ মামলার আসামি

ডেস্ক নিউজ: হাইকোর্টের আদেশে কারাগারে বিয়ে করলেন ধর্ষণ মামলার আসামি ও ভুক্তভুগি। ধর্ষণ মামলায় জামিনের বিষয়ে হাইকোর্টের আদেশের পর ফেনী জেলা কারাগারে আসামির সঙ্গে ভুক্তভোগী তরুণীর বিয়ে অনুষ্ঠিত হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে কারাগারে বর ও কনেসহ দুই পক্ষের উপস্থিতিতে এই বিয়ে সম্পন্ন হয়।

কারা সূত্রে জানা গেছে, সকালে মিষ্টি নিয়ে দুই পক্ষের আত্মীয়-স্বজনসহ আইনজীবীরা কারাগারের ফটকে হাজির হন। পরে বিয়ের মূল আয়োজন সম্পন্ন করতে আসেন ফেনী জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মনিরুজ্জামান এবং বিয়ের কাজী আবদুর রহিম। এ সময় ৬ লাখ টাকা দেনমোহর এবং ১ লাখ উশুল ধার্য করে বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হয়। এ সময় মিষ্টিমুখ করে দুই পরিবারের সদস্যরা কোলাকুলি করেন।

উল্লেখ্য, গত ২৭ মে জেলার সোনাগাজীর এক তরুণী স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) সদস্যের ছেলে জহিরুল ইসলাম জিয়ার বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগে মামলা করেন। ২৯ মে জহিরুলকে গ্রেপ্তার করে সোনাগাজী মডেল থানা-পুলিশ। পরে তাঁর পরিবার তরুণীর পরিবারের সঙ্গে আপস-মীমাংসা করেন। জহিরুল ওই তরুণীকে বিয়ে করবেন—এমন কথা জানিয়ে তাঁর পক্ষে হাইকোর্টে জামিনের আবেদন করা হয়। হাইকোর্টের বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিমের আদালত জহিরুলকে জামিন না দিয়ে কারাফটকে জহিরুল ও ভুক্তভোগী তরুণীর বিয়ের আয়োজন করার জন্য ফেনী কারাগারের তত্ত্বাবধায়ককে নির্দেশ দেন। সেই সঙ্গে বিয়ের বিষয়ে আদালতে প্রতিবেদন দাখিল করতে বলেন। এরই ধারাবাহিকতায় আজ দুপুরে তাদের বিয়ে সম্পন্ন হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here