নড়াইলে পুলিশ সদস্য ডিএসবি নজরুলের বিদায়ী সংবর্ধনা

নড়াইলে ডিএসবি নজরুলের বিদায়ী সংবর্ধনা

রিপন বিশ্বাস,জেলা প্রতিনিধি নড়াইলঃ নড়াইলে জেলা পুলিশ সদস্য (ডি এস বি) মোঃ নজরুল ইসলাম এর বিদায়ী সংবর্ধনা করলেন নড়াইল জেলা পুলিশ সুপার জনাব প্রবীর কুমার রায় , পিপিএম-বার ( অতিরিক্ত ডিআইজি নড়াইল)।

সোমবার( ০১ আগস্ট) নড়াইল জেলা পুলিশ সুপার এর কার্যালয় তাকে সম্মাননাসহ সুসজ্জিত গাড়িতে করে নিজ বাড়িতে পৌঁছে দেয়ার ব্যবস্থা করেন।

তিনি নড়াইল জেলা পুলিশ সদস্য ডিএসবি ও মিডিয়া শাখায় দীর্ঘ দিন কর্মরত ছিলেন।

বিদায়ী অনুষ্ঠানে আরোও উপস্থিত ছিলেন মোঃ রিয়াজুল ইসলাম অতিরিক্ত পুলিশ সুপার প্রশাসন ও অর্থ, মোঃ দোলন মিয়া অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সদর সার্কেল নড়াইল , ডিআই ও ( ১ ) জেলা বিশেষ শাখা , নড়াইল সহ জেলা পুলিশের বিভিন্ন পদমর্যাদার কর্মকর্তা ও পুলিশ সদস্য ।

আরও পড়ুন>>>নি‌জের গলা নি‌জেই কে‌টে চ‌লে গে‌লেন আসল ঠিকানায়

বিদায় মূহুর্তে পুলিশ সুপারসহ অন্যান্য কর্মকর্তাবৃন্দ বলেন, নজরুল নড়াইল জেলায় কর্মরত থাকাকালীন সময়ে দীর্ঘদিন যাবৎ নড়াইল জেলা পুলিশের ডিএসবি এবং মিডিয়া শাখায় অত্যন্ত সুনামের সাথে দায়িত্ব পালন করেছেন । তার কর্মকালীন সময়ে তার নড়াইল জেলা পুলিশের বিভিন্ন রকম গুরুত্বপূর্ণ তথ্য ও মিডিয়ার মাধ্যমে নড়াইল জেলা পুলিশের ভালো কাজ গুলি মিডিয়ার মাধ্যমে উপস্থাপন করে জেলা পুলিশের সুনাম অক্ষুন্ন রেখেছেন সব সময় মানুষের কল্যাণে সে কাজ করে গেছেন, যা একজন পুলিশ সদস্যের জন্য খুবই গর্বের বিষয় । তার অবসর জীবন সুন্দর ও নির্মল হোক- এ প্রত্যাশা সকলেই ব্যক্ত করেন ।

মোঃ নজরুল ইসলাম বলেন, আমি বাংলাদেশ পুলিশের একজন গর্বিত সদস্য । সুস্থ শরীরে চাকুরি জীবন শেষ করে আজ আমি অবসর জীবনে পদার্পণ করলাম ।আমি মোঃ নজরুল ইসলাম যশোর জেলার বাঘারপাড়া উপজেলার বাঘারপাড়া পৌরসভাধীন ১ নং ওয়ার্ডের স্থায়ী বাসিন্দা । আমার পিতা মৃত নেছার উদ্দিন । তিনি বিগত ১৫ বৎসর পূর্বে মহান আল্লাহ তায়ালার ডাকে সাড়া দিয়ে পরপারে পাড়ি জমান । জীবদ্দশায় তিনি একজন কৃষক ছিলেন ।
নড়াইলে ডিএসবি নজরুলের বিদায়ী সংবর্ধনা
আমি ০১/১১/১৯৮৬ সালে বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনিতে যোগদান করি । দীর্ঘদিন বাংলাদেশের বিভিন্ন জেলায় অত্যন্ত সততা ও নিষ্ঠার সাথে পুলিশ বাহিনীর বিভিন্ন ইউনিটে কর্মরত ছিলাম । চাকুরি জীবনে উল্লেখযোগ্য কর্মকাণ্ডে অবদান রাখায় বাংলাদেশ পুলিশের পক্ষ থেকে একাধিকবার পুরস্কৃত হয়েছি । দাম্পত্য জীবনে আমার স্ত্রী ও একটি পুত্র সন্তান রয়েছে । আমার সন্তান মাস্টার্স পাশ করার পর বর্তমানে একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে কর্মরত । আমি বাংলাদেশ পুলিশে চাকুরিরত অবস্থায় সর্বোচ্চ সেবা দিয়ে জনগণের পাশে থেকে পুলিশি সেবা মানুষের দোরগোঁড়ায় পৌঁছে দেওয়ার সর্বাত্মক চেষ্টা করেছি । চাকুরির খাতিরে হয়তোবা আমার কোনো কর্মকাণ্ডে কেউ কষ্ট পেয়ে থাকতে পারে- যেটা সম্পূর্ণরূপে আমার অনিচ্ছাকৃত ত্রুটি । তবে এটুকু বলতে পারি , ব্যক্তিস্বার্থে শুধুমাত্র মনের অগোচরে ব্যতীত স্বজ্ঞানে কারো মনো কখনো ব্যথা দেয়নি এবং দেওয়ার চেষ্টাও করিনি । তবুও যদি কেউ আমার কোনো কর্মকাণ্ডে কষ্ট পেয়ে থাকে তাহলে আমি তাদের কাছে যাবার বেলায় ক্ষমাপ্রার্থী ।
নড়াইলে ডিএসবি নজরুলের বিদায়ী সংবর্ধনা
চাকুরি জীবনের শেষ প্রান্তে নড়াইল জেলা পুলিশে যতদিন চাকুরি করেছি , এই জেলার পুলিশের কথা আসলে ভুলার নয় এ জেলার পুলিশের কথা আমি কখনো ভুলবো না এরা আমাকে অনেক অনেক ভালবেসেছেন যাবার বেলায় এই জেলার পুলিশের প্রতি রইলো আমার আন্তরিক সালাম ও শুভেচ্ছা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here