লোহাগড়ায় ভুল চিকিৎসায় শিশু মৃত্যুর অভিযোগ

ভুল চিকিৎসায় শিশু মৃত্যু
লোহাগড়ায় ভুল চিকিৎসায় শিশু মৃত্যুর অভিযোগ

লোহাগড়া (নড়াইল) প্রতিনিধিঃ নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলার একটি বেসরকারি ক্লিনিকে ডাক্তারের ভুল চিকিৎসায় প্রাণ হারালো ১৮ মাস বয়সী শিশু মারিয়া।

ডাক্তারের ভুল চিকিৎসায় প্রাণ হারানো শিশুটি লোহাগড়া উপজেলার লংকারচর গ্রামের বকুল শেখের মেয়ে।

অভিভাবকরা শিশুটিকে চিকিৎসার জন্য আজ বৃহস্পতিবার (১৯ নভেম্বর) সকালে লোহাগড়ায় ডাক্তার প্রবীর কুমার দে (শ্যাম) এর চেম্বার কাম ক্লিনিকে নিয়ে আসেন। এসময় ডাক্তার প্রবীর কুমার দে (শ্যাম) ওই শিশুকে ইনজেকশন দেওয়ার জন্য লক্ষ্মীপাশা এলাকার মোর্শেদা ক্লিনিকে পাঠান।

মোর্শেদা ক্লিনিকের নার্স সীমা তড়িঘরি করে ওই শিশুকে একটি ইনজেকশন প্রয়োগ করেন বলে স্বজনদের অভিযোগ। এরপর বিকাল ৩ টার দিকে ওই শিশুর শারিরীক অবস্থার অবনতি ঘটলে মোর্শেদা ক্লিনিক কর্তৃপক্ষের পরামর্শে শিশুর অভিভাবকরা পুনরায় ডাক্তার প্রবীর কুমার দে শ্যামের চেম্বারে পাঠান। এসময় ওই ডাক্তার শিশুটিকে চিকিৎসা না দিয়ে একটি ব্যবস্থাপত্র ধরিয়ে দেন। শিশুর শারিরীক অবস্থার অবনতি হওয়ায় অভিভাবকরা তাকে লোহাগড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসেন।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরী বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক মোঃ শরিফুল ইসলাম জানান, স্বাস্থ্য কেন্দ্রে আসার আগেই শিশুটি মারা গেছে।

চিকিৎসক প্রবীর কুমার দে শ্যাম বলেন, আমি তাকে খুলনা শিশু হাসপাতালে ভর্তির পরামর্শ দিয়েছি। এরপর ওই শিশুর অভিভাবকরা কি করেছে আমি জানি না।

এ ব্যাপারে মোর্শেদা ক্লিনিকের মালিক মোঃ জাকির হোসেনের সাথে যোগাযোগে চেষ্টা করেও যোগাযোগ সম্ভব হয়নি।

আরো পড়ুন:
যশোর সদর উপজেলার নব নির্বাচিত নীরাকে শুভেচ্ছা জানালেন আলীমুজ্জামান মিলন
চিত্রনায়িকা শ্রাবন্তীকে কুপ্রস্তাব দেওয়ায় খুলনার মাহাবুব গ্রেফতার
কারাগারে ধর্ষণ মামলার আসামির সঙ্গে ভুক্তভোগীর বিয়ে

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here